কক্সবাজারে ইয়াবাসহ পুলিশ কর্মকর্তাকে হাতেনাতে গ্রেফতার করল বিজিবি !

0
242

 

২রা জুন রোজ রবিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে কক্সবাজার জেলার অন্তর্গত টেকনাফ থানাধীন মেরিন ড্রাইভ সড়কের উখিয়ার রেজুখাল ব্রিজ নামক এলাকা থেকে ৩ হাজার ২০০ পিস ইয়াবাসহ নিজামুল হক নামে পুলিশের এক উপ-পরিদর্শককে গ্রেফতার করেছে বিজিবি। এ সময় তার কথিত বান্ধবী পরিচয়ে এক নারীকেও গ্রেফতার করা হয়। তাৎক্ষণিকভাবে ঐ নারীর নাম ও পরিচয় জানাতে পারেনি বিজিবি। গ্রেফতারকৃত নিজামুল হক চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটনে উপ-পরিদর্শক পদে কর্মরত রয়েছে।

বার্তা সংস্থা –বিএন- ‘টিডিইউএন’ সূত্রে বিষয়টি নিশ্চিত করে কক্সবাজারের অতিরিক্ত (বিজিবি) পুলিশ সুপার মোহা. ইকবাল হোসেন জানায়, একটি মোটরসাইকেলে করে টেকনাফ থেকে ছেড়ে এসে পুলিশের উপ-পরিদর্শক নিজামুল হক মেরিন ড্রাইভ সড়কের রেজুখাল ব্রিজ সংলগ্ন বিজিবির চেকপোস্ট অতিক্রম করার সময় তল্লাশির উদ্দেশ্যে মোটরসাইকেলটি থামায় বিজিবি।

পরে মোটরসাইকেলে বসা উপ-পরিদর্শক নিজামুল হক ও তার কথিত বান্ধবীর শরীর তল্লাশি করে ৩ হাজার ২শ’ পিস ইয়াবা পেয়ে তাকে গ্রেফতার করে চেকপোস্টে দায়িত্বরত বিজিবি সদস্যরা।

এদিকে, এ সকল ঘটনার পরি-প্রেক্ষিতে সমাজ বিশ্লেষকগণ রাষ্ট্রীয় শাসন ব্যবস্থাকে দায়ী করার পাশাপাশি দেশের শিক্ষানীতিও এসকল কর্মকাণ্ডের জন্য দায়ী বলে উল্লেখ করেন।

বিশ্লেষকগণ বলেন, যাদের মাধ্যমে দেশের মানুষ উপকৃত হবে। যারা সমাজ ও রাষ্ট্রের মানুষকে স্বদেশীয় গাদ্দারদের পাশাপাশি বিদেশি শত্রুর মনস্তাত্তিক ও সামরিক আক্রমণ থেকে রক্ষা করবে। যাদের ভরণ-পোষণ গ্রহণ করা হয় সরকারি তথা সাধারণ খেটে খাওয়া শ্রমিক থেকে শুরু করে দেশের সর্বস্তরের উচ্চবিত্ত, মধ্যবিত্ত ও নিম্নবিত্ত মানুষের ঘাম জড়ানো আয়-রোজগারের ট্যাক্সের টাকায়।

যাদের উপর নির্ভর করে কোটি মানুষের সামাজিক-পারিবারিক ও রাষ্ট্রীয় সুশৃঙ্খলতা ও উন্নতির উত্কর্ষ সাধন। তাদের মাধ্যমে যখন দেশ ও জাতিকে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে নিক্ষেপ করার বড় উপকরণ সমূহ হতে একটি উপকরণ মাদক সেবন, মাদক ক্রয়-বিক্রয়ের ন্যায় এরকম জঘন্য অপরাধমূলক কর্ম সঙ্ঘঠিত হয়, তখন সে দেশে অবস্থানরত কোটি মানুষের প্রাপ্তি আফসোস আর পরিতাপ বৈ আর কিছুই হতে পারে না। এর জন্য এদেশের প্রচলিত শাসন ব্যবস্থা থেকে শুরু করে শিক্ষা ব্যবস্থাসহ সকল অঙ্গন দায়ী।

বিশ্লেষকগণ মনে করেন, এর থেকে মুক্তির একটি পথ ও মতই অবশিষ্ট থাকে। সেটা হলো, দেশের প্রতিটি মানুষ পারিবারিক অঙ্গন থেকে শুরু করে দেশের সর্বোচ্চ শাসন ব্যবস্থা ক্বুরআন ও সুন্নাহ্‌ তথা ইসলামী আইন ও অনুশাসন অনুযায়ী পরিচালনা করার জন্য বদ্ধপরিকর হওয়া।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন