ভারতে চোর আখ্যা দিয়ে খুন করা হলো মুসলিম যুবককে!

1
201
ভারতে চোর ‘আখ্যা’ দিয়ে খুন করা মুসলিম যুবক তরবেজ আনসারি। ছবি: টাইমস অব ইন্ডিয়া।

আসামের পর এবার ঝাড়খণ্ড। জোর করে ‘জয় শ্রীরাম’ বলানোর পর চোর ‘আখ্যা’ দিয়ে এক মুসলিম যুবককে পিটিয়ে খুন করল উগ্রবাদী হিন্দু জনতা। পুলিশের হাতে তুলে দেওয়ার আগে ১৮ ঘণ্টা ধরে বেধড়ক পেটানো হয় ওই যুবককে। জোর করে ‘জয় শ্রীরাম’ বলতে বাধ্য করা হয়। এ তথ্য জানিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।

গত ২২ জুন শনিবারে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছে ২৪ বছর বয়সী তবরেজ আনসারি। ঝাড়খণ্ডের খারসাওয়ানে ঘটেছে এই ঘটনা। গণপিটুনির বহু ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। একটি ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, এক উগ্র হিন্দু তবরেজকে একটি কাঠের লাঠি দিয়ে নৃশংসভাবে পেটাচ্ছে। আক্রান্ত যুবক ছেড়ে দেওয়ার আকুতি নিয়ে হাত জোড় করলেও তাতে কোনও ভ্রুক্ষেপ নেই ওই ব্যক্তির।

আর একটি ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, জোর করে তবরেজকে বলানো হচ্ছে ‘জয় শ্রী রাম’ ও ‘জয় হনুমান’।

জানা গিয়েছে, ১৮ জুন তবরেজকে বেধড়ক পেটানোর পর পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। তখন থেকে তিনি বিচারবিভাগীয় হেফাজতে ছিলেন। তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় ২২ জুন তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তারপর তিনি ঐদিনই মৃত্যুবরণ করেন।

পুনেতে দিনমজুরের কাজ করতেন তবরেজ। ঈদে পরিবারের সঙ্গে কাটাতে তিনি গ্রামে গিয়েছিলেন। সেই সময়ই তাঁর বিয়ের আয়োজন করেছিল পরিবার।

১৮ জুন তিনি দুই ব্যক্তির সঙ্গে জামশেদপুর রওনা দেন। ওই দু জন তাঁকে ফুঁসলিয়ে নিয়ে যাচ্ছে, তা বুঝতে পারেনি তবরেজ। বহু লোকজনের মধ্যে পড়ে গেলে ওই দু জন পালিয়ে যায়। আর মাঝখানে পড়ে যায় ছেলেটি।

ভিডিওতে বলতে শোনা গিয়েছে, ‘তুই এই বাড়িতে ঢুকবি?’ ছেলেটি বলেন যে তিনি কিছু জানেন না। ওই দু জন তাঁকে নিয়ে গিয়েছে। তবে সেই কথা কেউ শুনতে চায়নি।

১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন