ভারতে‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি না দেয়ায় মুসলিম কিশোরকে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা উগ্রহিন্দুদের!

0
341

ভারতের বিজেপিশাসিত উত্তর প্রদেশে ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি না দেয়ায় খলিল আনসারি নামে ১৭ বছর বয়সী এক মুসলিম কিশোরকে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা করে ভারতের উগ্র হিন্দু সন্ত্রাসীরা। গতকাল (রোববার) তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় বারানসীর কবীর চৌরা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। আগুনে ওই মুসলিম কিশোরের শরীরের ৪৫ শতাংশ পুড়ে গেছে।

চান্দৌলি জেলার বাসিন্দা ক্ষতিগ্রস্ত ওই কিশোরের অভিযোগ, সে ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি না দেয়ায় তাকে চার উগ্র হিন্দু অপহরণ করে নিয়ে যায়। এদের মধ্যে একজন তার গায়ে কেরোসিন তেল ঢেলে দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। ওই কিশোর জ্বলন্ত অবস্থায় যন্ত্রণায় ছটফট করলে আক্রমণকারীরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। আহত ওই কিশোরকে প্রথমে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও পরে তাকে অন্যত্র স্থানান্তর করা হয়।

অন্যদিকে ভারতে মুসলিমদের উপর এধরণের হামলার মদদদাতা দেশটির উগ্র হিন্দুত্ববাদী পুলিশ সত্যকে ঢাকতে মিথ্যার আশ্রয় নিয়ে দাবি করে যে, ওই কিশোর নিজেই তার গায়ে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। অথচ ঘটনাটি ঘটেছে দিনের বেলায় প্রকাশ্যে শত শত মানুষের সামনে।

এদিকে, গত শনিবার দিবাগত মধ্যরাতে উত্তর প্রদেশের আমেথিতে অবসরপ্রাপ্ত একজন মুসলিম আর্মি ক্যাপ্টেন আমানুল্লাহ খানকে (৬৪) বাসায় ঢুকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করেছে উগ্র হিন্দুত্ববাদী সন্ত্রাসীরা। তিনি এসময় নিজের স্ত্রীর সঙ্গে বাসায় ছিলেন। উগ্র হিন্দুরা লাঠি দিয়ে তার মাথায় একের পর এক আঘাত করলে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় ওই ক্যাপ্টেনের।

এভাবেই পুরো ভারতজুড়ে মুসলিম হত্যায় মেতেছে উগ্র হিন্দুরা। যার থেকে বর্তমানে নিরাপদ নয় আমাদের এই বাংলাদেশও।

Facebook Comments

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন