মুসলিমদের রক্তের সাথে তামাশা করছে এ শাসকগোষ্ঠী!

0
484

মুসলিমদের ভূমি কাশ্মীর। আজ সন্ত্রাসবাদী গো-পূজারী মুশরিক হিন্দুদের বর্বরতার শিকার পৃথিবীর জান্নাত খ্যাত এই ভূমি। মালাউন গেরুয়া সন্ত্রাসবাদীরা কাশ্মীরকে দীর্ঘদিন যাবৎ অবরুদ্ধ করে রেখেছে, গণহারে বন্দী করছে মুসলিমদের। নাপাক মুশরিক হিন্দুদের ধর্ষণের শিকার হচ্ছেন পবিত্র মুসলিম নারীগণ, আমাদের জাতি আজ কাশ্মীরে হিন্দুত্ববাদীদের হত্যাকাণ্ডের শিকার হচ্ছেন। আমরা মুসলিম, বিশ্বের সমগ্র মুসলিম একটি দেহের ন্যায়। এই দেহের কোন অংশ আঘাতপ্রাপ্ত হলে সারাদেহে তার ব্যাথা অনুভূত হয়, শরীরে জ্বর আসে। কিন্তু এই দেহের অংশ দাবিদার কিছু কর্তিত চুল আছে। যারা দেহ আঘাতপ্রাপ্ত হলে ব্যাথা পায় না।

হ্যাঁ, মুসলিম উম্মাহ থেকে খারেজ এরকম কর্তিত চুলেরাই সারাবিশ্বে মুসলিম নির্যাতনে ব্যথিত না হয়ে বরং আনন্দিত হয়। আজ কাশ্মীরে যখন আমাদের মুসলিম জাতিকে সন্ত্রাসবাদী মোদির নেতৃত্বে মালাউন মুশরিক হিন্দুরা ধ্বংস করে দেওয়ার চক্রান্ত করছে, তখনই সেই মুশরিক সন্ত্রাসী মোদিকে সম্মাননা দিচ্ছে আরবের নামধারী মুসলিম শাসকগোষ্ঠী। এরা উম্মাহর রক্ত নিয়ে তামাশা করছে, এরাই সর্বযুগে উম্মাহর সাথে গাদ্দারী করেছে।

গত ২৪শে আগস্ট শনিবার আরব রাষ্ট্র বাহরাইনের রাজধানী মানামায় মালাউন মোদির হাতে দেশটির সর্বোচ্চ বেসামরিক পুরস্কার ‘দ্য কিং হামাদ অর্ডার অব দ্য রেনেসাঁস’ সম্মাননা তুলে দিয়েছে বাহরাইনের বাদশাহ হামাদ বিন ঈসা আল খলিফা।

এর আগে অর্থাৎ বাহরাইন সফরের পূর্ব মুহূর্তে একইদিনে আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিতে অনুষ্ঠিত একটি সভায় গুজরাটের সন্ত্রাসী মুশরিক হিন্দু মোদির হাতে নিজেদের সর্বোচ্চ বেসামরিক পুরস্কার ‘অর্ডার অব জায়েদ’ প্রদান করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের মুরতাদ সরকার। ইসলাম ও মুসলিমদের বিরুদ্ধে এই আরব আমিরাতের মুরতাদ সরকারের ইতিহাস অনেক দীর্ঘ। মুসলিমদের বিরুদ্ধে কাফেরদেরকে সহযোগিতার ক্ষেত্রে এরা অতি অগ্রগামী। আল্লাহ এই সকল শাসকগোষ্ঠীর গদি ধ্বংস করে দিন, তাদের প্রাসাদগুলোই যেন তাদের বিপর্যয়ের কারণ হয় সেই ব্যবস্থা করে দিন। তাদের হঠকারিতা ও কুকর্ম থেকে উম্মাহকে হেফাজত করুন। আমীন ইয়া রাব্বিল আলামীন।


লেখক: ত্বহা আলী আদনান, প্রতিবেদক, আল-ফিরদাউস নিউজ।

 

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন