ব্ল্যাক ওয়াটারকে দায়িত্ব দিতেই কি হত্যা করা হলো সৌদি বাদশাহ সালমানের দেহরক্ষীকে?

0
1084

সৌদি আরবের বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজি আলে সৌদের দেহরক্ষী মেজর জেনারেল আবদুল আজিজ আল ফাগামকে রাজপ্রাসাদের ভেতরেই হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন সে দেশের গোপন তথ্য ফাঁসকারী মুজতাহিদ। মুজতাহিদ এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, ‘বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজের দেহরক্ষীকে রাজপ্রাসাদে হত্যার পর এখন বলা হচ্ছে তিনি তার বন্ধুর হাতে নিহত হয়েছেন।’

এর আগেও সৌদি রাজপরিবারের ভেতরের অনেক তথ্য ফাঁস করেছেন মুজতাহিদ। নতুন টুইটে তিনি দাবি করেন, দীর্ঘদিন ধরেই তাগুত যুবরাজ  মুহাম্মদ বিন সালমান ওই দেহরক্ষীকে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছিল। মুজতাহিদ দাবি করেন, এ সংক্রান্ত বিশদ তথ্য খুব শিগগিরই ফাঁস করা হবে। স্বেচ্ছানির্বাসিত সাংবাদিক জামাল খাশোগিকে হত্যার দায় স্বীকার করার পর বাদশাহর দেহরক্ষীর হত্যার ঘটনা ঘটলো। আলে সৌদ পরিবারে যে ক্ষমতা নিয়ে বড় ধরণের দ্বন্দ্ব বিদ্যমান তা সাম্প্রতিক বেশ কিছু ঘটনায় সুস্পষ্ট হয়ে গেছে।

পার্সটুডে সংবাদসংস্থা জানায়, এর আগে সৌদির নির্বাসিত রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ড. মুহাম্মদ আল মাসায়ারি সতর্ক করে দিয়ে বলেছিলেন, সৌদি ক্রাউন প্রিন্স তাগুত মুহাম্মদ বিন সালমান বাদশাহর দেহরক্ষী আল-ফাগামকে হত্যা করতে পারে। তিনি আরও বলেছিলেন, ওই দেহরক্ষীর ওপর আস্থা রাখতে পারছে না সৌদি রাজপরিবার। তাকে হত্যা করে বিশ্ব গোপনসন্ত্রাসী মার্কিন ব্ল্যাক ওয়াটারকে নিরাপত্তার দায়িত্ব দেওয়া হতে পারে বলেও জানিয়েছিলেন তিনি।

এভাবে, সৌদি আরবের পুণ্যভূমিকে বিশ্বসন্ত্রাসী এবং বর্তমান সময়ে ইসলাম ও মুসলিমদের সবচেয়ে বড় শত্রু আমেরিকার হাতে তুলে দিচ্ছে আলে সৌদ তাগুত পরিবার।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন