সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে সাধারণ জনগণের গাছ বিক্রির অভিযোগ

0
198

টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে এক সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতা ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে রাস্তার পাশের সরকারি গাছ কেটে বিক্রি করার অভিযোগ ‍উঠেছে। সে নাগবাড়ী ইউনিয়ন সন্ত্রাসী যুবলীগের সভাপতি আয়নাল হক মেম্বার।

জানা গেছে, উপজেলার তেজপুর থেকে গান্ধিনা পর্যন্ত প্রায় ১ কিলোমিটার এবং গান্ধিনা থেকে দড়িখরশিলা পর্যন্ত ৬শ’ মিটার রাস্তার দু’পাশের সরকারি গাছ ২ লাখ ১০ হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। গাছগুলো কিনেছে কাঠ ব্যবসায়ী মালেক মেম্বার ও ফজলুল হক।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, ইউনিয়ন সন্ত্রাসী যুবলীগের সভাপতি আয়নাল হকের নেতৃত্বে এ কাজ হয়েছে। নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করে বিনা টেন্ডারে গাছ কেটে বিক্রি করলেও কেউ প্রতিবাদ করার সাহস পর্যন্ত পায়নি। আয়নালের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ এবং একাধিক মামলা চলমান রয়েছে।

গাছের ক্রেতা আব্দুল মালেক মেম্বার গাছগুলো কেনার বিষয়টি স্বীকার করেছে। তবে কার নিকট থেকে গাছ কিনেছেন এমন প্রশ্নে তিনি গাছ কর্তনকারী ও বিক্রেতাদের নাম প্রকাশ করতে অপারগতা জানিয়েছেন।

নাগবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়্যারম্যান মাকছুদুর রহমান মিল্টন সিদ্দিকী বলেছে, স্থানীয় সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতা আয়নাল হক মেম্বারসহ কয়েকজনে ঠিকাদারের সহযোগিতায় গাছ কেটে বিক্রি করেছে বলে শুনেছি।

এ বিষয়ে কালিহাতী উপজেলা এলজিইডি’র প্রকৌশলী মোখলেছুর রহমান গাছ কেটে বিক্রির ঘটনা স্বীকার করে বলেন, তেজপুর থেকে গান্ধিনা ও গান্ধিনা থেকে দড়িখরশিলা পর্যন্ত রাস্তা প্রশস্তকরণ কাজ চলছে।

এ সুযোগে স্থানীয় একটি প্রভাবশালী মহল রাতের আধাঁরে রাস্তার দু’পাশের গাছগুলো অবৈধভাবে কেটে বিক্রি করেছে। আমরা গাছ কাটা ও বিক্রির কোন টেন্ডার দেয়নি।

খবর: বিডি প্রতিদিন

 

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন