ছাত্রীর মৃত্যুর মামলা নেয়নি সন্ত্রাসী পুলিশ

0
147

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে স্কুলছাত্রী সিনথিয়ার মৃত্যুর ঘটনায় মামলা নেয়নি সন্ত্রাসী পুলিশ। অভিভাবকদের ভাষ্য, সিনথিয়ার শরীরে আঘাতের চিহ্ন থাকার পরও পুলিশ তা সুরতহাল প্রতিবেদনে উল্লেখ করেনি। এর সঙ্গে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানও জড়িত বলে অভিযোগ করেছেন ছাত্রীর স্বজনরা।

সিনথিয়া ভাগ্যকূল ইউনিয়নের ফজলুল হক উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী ছিল। পরিবারের ভাষ্য, গত বৃহস্পতিবার সে বিদ্যালয়ের পাশে চাচাতো মামা সাকিবের সঙ্গে কথা বলছিল। ওই সময় স্থানীয় খোকা মোড়লের ছেলে রাকিব, তার সহযোগী জুবায়েদ, সিফাত, লিয়নসহ কয়েকজন সিনথিয়া ও সাকিবের বিরুদ্ধে অসামাজিক কার্যকলাপে লিপ্ত থাকার অভিযোগ তুলে মারধর করে।  খবরঃ কালের কন্ঠ

পরে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি কাজী মনোয়ার হোসেন শাহাদাত্ হামলাকারীদের পক্ষ নিয়ে সিনথিয়াকে বিদ্যালয়ের ছাড়পত্র (টিসি) দিতে প্রধান শিক্ষককে নির্দেশ দেন। এতে ওই ছাত্রী মানসিকভাবে ভেঙে পড়ে। সেখানে থেকে বাড়ি ফিরে আত্মহত্যা করে সিনথিয়া।

ছাত্রীর বাবা আব্দুর রহিম বলেন, ‘চেয়ারম্যান বখাটেদের পক্ষ নিয়েছে। তিনি থানা পুলিশকে নিয়ন্ত্রণ করে ফেলেছেন। এই কারণে পুলিশ মামলা নিচ্ছে না। চেয়ারম্যান ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনও ভিন্ন খাতে নেওয়ার পাঁয়তারা করছেন।’

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন