কথিত আন্তর্জাতিক আদালতে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধ তদন্তের বিপক্ষে বাইডেন প্রশাসন

0
380
কথিত আন্তর্জাতিক আদালতে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধ তদন্তের বিপক্ষে বাইডেন প্রশাসন

দখলদার ইসরায়েলের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনি ভূমিতে যুদ্ধাপরাধ সংঘটনের অভিযোগে তদন্ত করতে চায় কথিত আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত (আইসিসি)। কিন্তু, কথিত এই তদন্তেরও বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছে মানবতার ফেরিওয়ালা বিশ্ব সন্ত্রাসী ক্রুসেডার আমেরিকা। মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস নিজেই দখলদার প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুর কাছে ফোন করে তাকে এ বিষয়ে আশ্বস্ত করেছে। খবর রয়টার্সের।

বাইডেনের সহযোগী হিসেবে হোয়াইট হাউসে দায়িত্বগ্রহণের পর বৃহস্পতিবার প্রথমবারের মতো ঘনিষ্ঠ মিত্র ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছে হ্যারিস। আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত আনুষ্ঠানিকভাবে ইসরায়েলের যুদ্ধাপরাধ তদন্তের ঘোষণা দেওয়ার একদিন পরেই নেতানিয়াহুর কাছে ফোন করে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন ভাইস প্রেসিডেন্ট।

হোয়াইট হাউস এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, নেতানিয়াহু ও হ্যারিস উভয়েই তাদের সরকারের পক্ষ থেকে ইসরায়েলি কর্মকর্তাদের ওপর আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের বিচারিক প্রচেষ্টার বিরোধিতার কথা উল্লেখ করেছে।

দেশটি বলছে, ইসরায়েলের নিরাপত্তা রক্ষায় যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিশ্রুতি অটল রাখায় গুরুত্ব বৃদ্ধি করেছে কমলা হ্যারিস। পাশাপাশি অন্যান্য বিভিন্ন বিষয়েও পারস্পরিক সহযোগিতা বৃদ্ধিতে সম্মত হয়েছে।

আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের যুদ্ধাপরাধ তদন্তে গভীর ‘উদ্বেগ ও হতাশা’ প্রকাশ করে যুক্তরাষ্ট্রে বলেছে , ইসরায়েল আইসিসির সদস্য না হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে তদন্তের এখতিয়ার নেই আদালতের।

বাইডেন প্রশাসনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিনকেনও এক বিবৃতিতে বলেছে, ইসরায়েল আইসিসির কোনও পক্ষ নয় এবং আদালতের এখতিয়ারে সম্মতিও দেয়নি। ইসরায়েলি কর্মকর্তাদের ওপর আইসিসির এখতিয়ার প্রয়োগের প্রচেষ্টায় আমাদের গুরুতর উদ্বেগ রয়েছে।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন