কলেজ ছাত্রীকে শ্লীলতাহানি করলো সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতা

0
134

গাজীপুর মহানগর এলাকায় এক কলেজ ছাত্রীকে অপহরন ও শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠেছে কালীগঞ্জের এক সন্ত্রাসী ল যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে। শুক্কুর আলী (২৮) নামের এই সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মামলা হয়েছে পূবাইল থানায়। অভিযুক্ত শুক্কুর আলী পৌরসভার বালিগাঁও এলাকার আবদুল আলীর পুত্র। তিনি কালীগঞ্জ পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড সন্ত্রাসী যুবলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

বিডি প্রতিদিনের সূত্রে জানা যায়, টঙ্গী সরকারি কলেজে মাস্টার্সে অধ্যয়নরত ছাত্রীর বাবা ও মা মারা গেছেন। তাদের বাড়ি কালীগঞ্জে। একমাত্র ছোট ভাই দুই বছর আগে বিয়ে করেছেন। দাম্পত্য কলহে ভাইয়ের স্ত্রী সম্প্রতি কালীগঞ্জ থানায় নারী নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছেন। আসামি করা হয়েছে কলেজছাত্রী ও তার ভাইকে। এ ঘটনায় হয়রানি এড়াতে ছাত্রীকে স্থানীয় সংসদ সদস্য মেহের আফরোজ শাওনের সাথে দেখা করার পরামর্শ দেন মুরুব্বিরা। সংসদ সদস্যের ঢাকার বাসা না চেনায় ছাত্রী সহযোগিতা চান সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতা শুক্কুর আলীর কাছে।

যুবলীগ নেতা শুক্কুর আলী ছাত্রীকে ঢাকায় নিয়ে যেতে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ডেকে নেন। এরপর মোটরসাইকেলে করে কালীগঞ্জ থেকে রওনা দেন। রাত ৮টার দিকে ছাত্রীকে পুবাইল থানার বাড়ৈইবাড়ি এলাকার একটি স্যুটিং স্পটে নিয়ে যান শুক্কুর। ছাত্রীর সন্দেহ হলে চিৎকার শুরু করেন। তখন সন্ত্রাসী যুবলীগ নেতা শুক্কর তাকে টেনে একটি ঘরে ঢোকাতে চেষ্টা চালান। আশেপাশের লোকজন ছুটে আসলে শুক্কুর আলী পালিয়ে যান। পরে এলাকার লোকজন ছাত্রীকে উদ্ধার করে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেন। শুক্কুরের বিরুদ্ধে একাধিক বিয়ে ও বহু নারী কেলেংকারীর অভিযোগ রয়েছে বলে স্থানীয়রা জানান।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন