মোদী-যোগীর প্রশংসা আর ৩ মুসলিমকে খুন হিন্দু পুলিশ কনস্টেবলের

আলী হাসনাত

0
384

ভারতের মহারাষ্ট্রে, ট্রেনের ভিতর তিনজন মুসলিম যাত্রীকে গুলি করে হত্যা করেছে দেশটির এক উগ্রবাদী হিন্দু পুলিশ, চেতন সিং।
গত সোমবার ৩১ জুলাই জয়পুর-মুম্বাই সেন্ট্রাল এক্সপ্রেস ট্রেনে এই ঘটনা ঘটে। ট্রেনটি যখন পালঘর রেলওয়ে স্টেশনের কাছে আসে, তখন পুলিশ কনস্টেবল চেতন সিং ট্রেনে আরোহণকারী তিনজন মুসলিমকে গুলি করে হত্যার জন্য তার স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র ব্যবহার করে। এই হত্যাকাণ্ডে হস্তক্ষেপ করলে অপর এক পুলিশ সদস্যকেও গুলি করে হত্যা করে চেতন সিং।

সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়, যেখানে চেতন সিং নামে পরিচিত ঐ কনস্টেবলকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের প্রশংসা করতে শোনা যায়।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এক প্রতিবেদন অনুযায়ী, চেতন সিং ট্রেনের তিনটি পৃথক কোচে গিয়ে দাড়িওয়ালা ৩ জন মুসলিমকে টার্গেট করে তার হাতের অ্যাসল্ট রাইফেল দিয়ে ১২ রাউন্ড গুলি চালায়। এতে নিহত হন আব্দুল কাদের (৬০), সদর মোহাম্মদ হোসেন ও আসগর আব্বাস আলী (৩৫) নামের ৩ জন মুসলিম।

এই জঘন্য হত্যাকাণ্ডের পর চেতন সিং মুসলমানদের বিরুদ্ধে ঘৃণাসূচক গালিগালাজ শুরু করে। “…পাকিস্তান ছে অপারেটিং হুয়ে ইয়ে, অওর মিডিয়া ইয়েহি কভারেজ দিখা রাহি হ্যায়, উনকো সব পাতা চল রাহা হ্যায় ইয়ে কেয়া কার রাহে হ্যায়… আগর ভোট দেনা হ্যায়, আগার হিন্দুস্তান মে রেহনা হ্যায়, তো ম্যায় কেহতা হু মোদি অর যোগী, ইয়ে দো হ্যায়।” শেষ লাইনে তিনি বলেছেন যে, ভারতে থাকতে হলে আপনাকে মোদী ও যোগীর স্লোগান দিতে হবে।

হিন্দুত্ববাদীরা মুসলিম গণহত্যা বাস্তবায়নে কতটা মুখিয়ে আছে, আর ভারতের রাষ্ট্র ব্যবস্থার কতটা গভিরে হিন্দুত্ববাদ খুঁটি গেড়ে নিয়েছে – চেতন সিংয়ের এই ঘটনা তার জলজ্যান্ত সাক্ষী বহন করছে বলেই মনে করা হচ্ছে। তাছাড়া ভারত যে বৃহৎ পরিসরে মুসলিম গণহত্যা বাস্তবায়নের দ্বারপ্রান্তে, সেই সতর্কতা গ্রেগরি স্ট্যান্টনের মতো গণহত্যা বিশেষজ্ঞরা ইতিমধ্যে জানিয়েছেন।

তথ্যসূত্র:
——-
1. Breaking News। Mumbai Train Incident । Firing in Train by RPF Constable Chetan Singh। Millat Times
https://tinyurl.com/2p8anedv
2. Railway Protection Force constable shoots dead 3 Muslim passengers on board Jaipur-Mumbai train
https://tinyurl.com/4z5w7n6j

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন

পূর্ববর্তী নিবন্ধআসামে মসুলিম যুবকদের গণপিটুনি, নিহতের লাশে পদাঘাত
পরবর্তী নিবন্ধজবাবদিহিতা: জনগণের আস্থা অর্জনের মূল চাবি