আরসা মুক্তিকামীদের গুলিতে মিয়ানমার সীমান্তসন্ত্রাসী বাহিনীর দুই অফিসার আহত

4
765
আরসা মুক্তিকামীদের গুলিতে মিয়ানমার সীমান্তসন্ত্রাসী বাহিনীর দুই অফিসার আহত

আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির (আরসা) সদস্যরা শনিবার রাখাইন রাজ্যের মিয়ানমার-বাংলাদেশ সীমান্তে টহলরত বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) ওপর হামলা চালিয়ে দুই পুলিশ সদস্যকে গুরুতর আহত করেছে। মিয়ানমার সামরিক বাহিনী এ তথ্য জানিয়েছে।

বাংলাদেশের সীমান্ত পোস্ট নম্বর ৪১-এর প্রায় ৪০০ মিটার দূর থেকে বিজিপির টহল দলের ওপর হামলা চালায় আরসা। এতে এক পুলিশ লেফটেন্যান্ট ও একজন কনস্টেবল আহত হয়।

বিজিপির সমর্থনে সামরিক বাহিনীর সদস্যরা এগিয়ে এলে আরসা সদস্যরা নিরাপদে আশ্রয়ে গা ঢাকা দিয়ে সক্ষম হন। সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জাও মিন তুন এ কথা বলেন।

সূত্র: দি ইরাবতী

4 মন্তব্যসমূহ

    • আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি (Arakan Rohingya Salvation Army) (বর্মী: အာရ်ကန်ရိုဟင်ဂျာ ကယ်တင်ရေးတပ်မတော်; সংক্ষেপে আরসা; ARSA),[৪][৫][৬] পুরনো নাম হারাকাহ আল ইয়াকিন (Harakah al-Yaqin – বিশ্বাস আন্দোলন)[৭][৮] হলো মায়ানমারের উত্তর রাখাইন রাজ্যে সক্রিয় একটি রোহিঙ্গা বিদ্রোহী দল (insurgent group)। ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইসিস গ্রুপের ২০১৬র ডিসেম্বর মাসের রিপোর্ট অনুসারে, দলটির নেতৃত্ব দেন আতাউল্লাহ আবু আম্মার জুনুনি নামে পাকিস্তানের করাচীতে জন্ম নেয়া একজন রোহিঙ্গা, যিনি সৌদি আরবের মক্কায় বড় হয়েছেন।[১][২] এছাড়া সৌদিপ্রবাসী রোহিঙ্গাদের একটা কমিটিও এর নেতৃত্বে আছে।[৯]

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন