সেনা প্রত্যাহারের নির্ধারিত সময়সীমা লঙ্ঘন করায় হামলার তীব্রতা বাড়িয়েছে তালেবান

2
1213
সেনা প্রত্যাহারের নির্ধারিত সময়সীমা লঙ্ঘন করায় হামলার তীব্রতা বাড়িয়েছে তালেবান
 আফগানিস্তানের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় ফারাহ প্রদেশে তালেবান তীব্র হামলা চালিয়েছে।
সোমবার স্থানীয় কর্মকর্তারা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। চলতি বছরের ১ মে’র মধ্যে দেশটি থেকে বিদেশি সেনা প্রত্যাহারের প্রক্রিয়া শেষ হয়ে যাওয়ার ঘোষণার পর থেকেই সাম্প্রতিক সময়ে হামলার ঘটনা বেড়ে গেছে।

এক ভিডিও বার্তায় ফারাহ প্রদেশের গভর্নর তাজ মোহাম্মদ জাহিদ বলেছে, তালেবান একটি আর্মি পোস্টে হামলা চালিয়েছে। তারা কাছাকাছি একটি বাড়ি থেকে ৪শ মিটার গভীর সুরঙ্গ খুড়েছে। তালেবানের সদস্যরা এক সেনাকে ধরে নিয়ে গেছে বলেও উল্লেখ করেছে।

নাম প্রকাশ না করা শর্তে স্থানীয় দুই কর্মকর্তা জানায়, এলিট কমান্ডো ফোর্সসহ সেনাবাহিনীর ডজনখানেক সদস্য নিহত হয়েছে। প্রাদেশিক কাউন্সিলের সদস্য খায়ের মোহাম্মদ নুরজাই বলেছে, হামলায় প্রায় ৩০ জন নিহত হয়েছে এবং ওই সেনা ঘাঁটি এখন তালেবানদের দখলে চলে গেছে।

এছাড়া আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলে গাড়ি বোমা বিস্ফোরণে অন্তত ৩০জন নিহত ও ৯০ জনের বেশি আহত হয়েছে। এ ঘটনাকে আত্মত্যাগী হামলা বলে উল্লেখ করেছে আলজাজিরা।

আফগান স্বরাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র তারিক আরিয়ান আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেছে, আরও মৃতদেহের তল্লাশি চালানো হচ্ছে এবং মৃতের সংখ্যা আরও বাড়বে।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ঘোষণা দেয়, আফগানিস্তানে দুই দশকের বিদেশি সেনার উপস্থিতির অবসান ঘটবে সামনের ১১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে। এ প্রক্রিয়া শুরু হচ্ছে ১ মে। আগের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে হওয়া চুক্তি অনুসারে, নির্দিষ্ট শর্ত সাপেক্ষে ১ মে’র মধ্যে সেনা প্রত্যাহার হওয়ার কথা ছিল।

তাই ‘আফগানিস্তান থেকে বিদেশী বাহিনী প্রত্যাহারে সর্বসম্মতি ভিত্তিতে নির্ধারিত ১ মের সময়সীমা লঙ্ঘনে ইসলামি আমিরাত আফগানিস্তানের (তালেবান) জন্য দখলদার বাহিনীর বিরুদ্ধে সব ধরনের পাল্টা ব্যবস্থা নেয়ার পথ খুলে গিয়েছে বলে জানিয়েছে তালেবান মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ
.
আর একটা ব্যাপার খুব লক্ষণীয়, আমেরিকা চুক্তি ভঙ্গ করেছে কিন্তু এটা নিয়ে কুফ্ফার মিডিয়ায় কোনো হৈচৈ নাই। যদি তালেবান চুক্তি ভঙ্গ করতো তাহলে মিডিয়ায় শত শত নিউজ চলে আসতো..
.
হলুদ মিডিয়ার এটাই আসল চেহারা যে এরা পরিপূর্নে রুপে ইসলামবিদ্বেষী ও ইসলামের জঘন্য শত্রু।

2 মন্তব্যসমূহ

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন