‘দ্যা কাশ্মীর ফাইলসের’ প্রভাব : মুসলিম নারীদের ধর্ষণ ও গণহত্যার আহ্বান জানিয়েছে হিন্দুত্ববাদী ইউটিউবার

0
958
‘দ্যা কাশ্মীর ফাইলসের’ প্রভাব : মুসলিম নারীদের ধর্ষণ ও গণহত্যার আহ্বান জানিয়েছে হিন্দুত্ববাদী ইউটিউবার

ভারতে ক্রমবর্ধমান ইসলামফোবিয়া এবং অস্থিরতা দিনদিন তীব্র আকার ধারণ করছে। বিশেষ করে দ্য কাশ্মীর ফাইলস মুভিটি মুক্তির পর থেকে, দেশের মুসলমানদের উপর সহিংসতার উসকানি দেওয়ার বেশকিছু ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশিত হয়েছে।

এক হিন্দুত্ববাদী ইউটিউবার জাফরানে মুখোশ পরে, ১৯৯০ সালে কাশ্মীরি পন্ডিতদের হত্যার প্রতিশোধ নিতে মুসলমানদের বিরুদ্ধে গণহত্যার আহ্বান জানিয়েছে৷ ভিডিওতে থাকা লোকটি (যার নাম অজানা) বিশেষভাবে মুসলিম সংখ্যালঘুদের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়ানোর জন্য একটি ইউটিউব চ্যানেল চালায়।

সে বলেছে “আমরা বারবার রক্তাক্ত হতে চাই না। আমরা চাই না তাদের জন্য আবারও কাদঁতে। তাই আমরা মুসলিমদের ছোট থেকে বয়স্ক সবাইকে মেরে ফেলব। আমরা যদি ছোটদের ছেড়ে দেই তাহলে তারা জানতে চাইবে কে তাদের বাবাকে হত্যা করেছে। তারা হিংসাপ্রবণ হয়ে উঠবে এবং প্রতিশোধ নিতে চাইবে,” টুইটারে প্রকাশিত তার একটি ভিডিওতে এভাবেই মুসলিমদের গণহত্যার আহ্বান জানিয়েছে সে।

সে আরো বলেছে “আমরা হিন্দুরা বারবার রক্তপাত চাই না। আমরা নিরাপদে এবং শান্তিতে থাকতে চাই। তাই  আমাদের সেনাবাহিনী একযোগে তাদের হত্যা করবে এবং শেষ করবে। আপনি যদি একজন হিন্দু হন এবং কাশ্মীরি পন্ডিতদের (মৃত্যুর) প্রতিশোধ নিতে চান, তাহলে যদি আপনি একজন মুসলমানকেও চেনেন, তাহলে তাদের কষ্ট দিন । তাদের ব্যবহার করুন এবং অসুবিধায় তাদের পরিত্যাগ করুন। কোনো ধরনের গোলকধাঁধায় তাদের ছেড়ে দিন।  তাদের ব্যবহার করুন (আপনার সুবিধার জন্য)।  তাদের এত কষ্ট দিন যে তারা কাঁদে, তাদের যন্ত্রণা দিন। এমন একটি পরিবেশ তৈরি করুন যা তাদের দেশ ত্যাগ করতে বাধ্য করে। আমরা তাদের ছেড়ে দেব না এবং তাদের দেশে থাকতে দেব না।”

সে হিন্দুদের উদ্দেশ্যে বলে “আপনার মস্তিষ্ক ব্যবহার করুন এবং এটি বিচক্ষণতার সাথে করুন। কারণ প্রশাসন (আইন) জানতে পারলে তারা আপনাকে লোক দেখানোর জন্য হলেও আটক করতে পারে। এটিকে এখনো এখন একটি স্বাধীন দেশ হিসেবে গণ্য করা হয়। তাই মুসলিম নিধনের কাজটি করতে হবে অতি গোপনে।”

হিন্দুত্ববাদী লোকটি মুসলিম মহিলাদের বিরুদ্ধে যৌন সহিংসতাকে উস্কে দেয় এবং তাদের ধর্ষণের হুমকি দেয়।

সে বলেছে, “যদি আমার ক্ষমতা থাকত, তাহলে আমি মুসলিমদের ছয় মাসের বাচ্চাদের মেরে ভাগ করে পিতামাতার হাতে তুলে দিতাম।  আমার ক্ষমতা নেই। আমার সুযোগ হলেই তোমাদের মা, বোন, দাদী, খালা এবং অন্যদের ধর্ষণ করব,” লোকটি হিন্দিতে মুসলিম মহিলাদের প্রতি যৌনতামূলক গালাগালি ও করেছে।

জাফরান কালারের মুখোস পরিহিত গুণ্ডা যে হিন্দুদেরকে মুসলমানদের উপর অত্যাচার করতে উসকানি দিয়েছে। সে ইনস্টাগ্রামে একটি আইডি চালায় চালায়। যা সে ধর্মীয় সংখ্যালঘু মুসলিমদের বিরুদ্ধে মানুষকে উত্তেজিত করতে ব্যবহার করে। লোকটি মুসলিম মহিলাদের বিরুদ্ধে যৌন সহিংসতাকে উস্কে দেয় এবং তাদের ধর্ষণের হুমকি দেয়।

জাফরান-পরিহিত লোকটি যে রঙিন মুখোশ দিয়ে তার পুরো মুখ ঢেকে রেখেছে, অন্য একটি ভিডিওতে, কর্ণাটক হিজাব পরিধান করা নিয়েও ইসলাম বিদ্বেষী মত প্রকাশ করেছে।

হিন্দুত্ববাদীদের আর তর সইছে না তারা চাচ্ছে যত দ্রুত সম্ভব মুসলিম গণহত্যা শুরু করে দিতে চাচ্ছে। এর জন্য তারা প্রকাশ্যে একেরপর মুসলিম বিদ্বেষী কাজ করে যাচ্ছে। আর হিন্দুত্ববাদী থিংকট্যাংকরা তাই ভুয়া তথ্যনির্ভর কাশ্মীর ফাইলস ছবিটি মুক্তি দেওয়ার জন্য এমন সময়কেই বেছে নিলেন, যখন এটা মুসলিমদের প্রতি জিঘাংসাকে সর্বোচ্চ পর্যায়ে উস্কে দিতে এবং গণহত্যার ক্ষেত্রকে চূড়ান্ত রূপ দিতে কার্যকর ভূমিকা রাখবে।


প্রতিবেদক :   উসামা মাহমুদ


তথ্যসূত্র:

1. Calls for Murder of Muslims ‘Heard’ in Viral Video of Former BJP MLA’s Rally in UP
https://tinyurl.com/2p8p6n7a

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন