মহানবী সা. কে নিয়ে সমালোচনা মতপ্রকাশের স্বাধীনতা হতে পারে না- আল্লামা শাহ আতাউল্লাহ হাফেজ্জী

0
665
মহানবী সা. কে নিয়ে সমালোচনা মতপ্রকাশের স্বাধীনতা হতে পারে না- আল্লামা শাহ আতাউল্লাহ হাফেজ্জী

বাংলাদেশের প্রখ্যাত আলেম আল্লামা শাহ আতাউল্লাহ হাফেজ্জী বলেছেন, মহানবী হযরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব। তাঁর স্ত্রীগণ উম্মাহাতুল মুমিনীন তথা মু’মিনদের মায়ের ন্যায়। মহানবী ও উম্মাহাতুল মুমিনীনদের নামে ভিত্তিহীন অভিযোগ উত্থাপন, কুরুচিপূর্ণ লেখালেখি মতপ্রকাশের স্বাধীনতা হতে পারে না। মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ও স্বাধীন কর্মকাণ্ডের নামে এ ধরনের ধৃষ্ঠতা ও বিদ্বেষ ছড়িয়ে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করাকে কোন সভ্য সমাজ সমর্থন করতে পারে না। ইসলাম ও মহানবীর নামে কটুক্তি করাকে যারা বাকস্বাধীনতার আওতাভুক্ত মনে করে তারা বেঈমান।

গত বৃহস্পতিবার বিকালে কামরাঙ্গীরচরস্থ জামিয়া নূরিয়া ইসলামিয়ায় খেলাফত আন্দোলনের এক বৈঠকে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আতাউল্লাহ হাফেজ্জী আরও বলেন, মহানবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে প্রতিটি মুমিন নিজ প্রাণের চেয়েও বেশি ভালবাসে। এমতাবস্থায় মহানবীকে অপমান করে যারা মুমিনদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ ঘটায় তাদের রাষ্ট্রীয়ভাবে বিচারের আওতায় নিয়ে আসার জন্য উলামায়ে কেরাম দীর্ঘদিন ধরে দাবি জানিয়ে আসছেন। রাষ্ট্রীয়ভাবে এদের বিচার না করে ক্রমাগত আশকারা দেয়ার অবস্থা চলমান থাকলে উদ্ভুত জনরোষে অনাকাঙ্খিত কিছু ঘটলে সেটার দায়ভারও সংশ্লিষ্টদেরই উপরই বর্তাবে।

উলেখ্য, নাস্তিক ব্লগার মালাউন অভিজিৎ রায়। সে মতপ্রকাশের স্বাধীনতার নামে  মহানবী ও উম্মাহাতুল মুমিন তথা মু’মিনদের মা ‘দের নিয়ে ভিত্তিহীন অভিযোগ উত্থাপন, কুরুচিপূর্ণ লেখালেখি করত। তাই আল্লাহর কিছু প্রিয় বান্দারা তার প্রাপ্ত বুঝিয়ে দিয়েছে।

কিন্তু কুফরী আদালত নাস্তিক ব্লগারকে হত্যার অভিযোগে ৫জন নবীপ্রেমিককে ফাঁসি ও আরেকজনকে যাবতজীবন কারাদণ্ড দিয়েছে।

 

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন