ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হওয়া বা করাকে ‘অপরাধ’ গণ্য করছে গুজরাট পুলিশ!

আবু উবায়দা

0
693
ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হওয়া বা করাকে ‘অপরাধ’ গণ্য করছে গুজরাট পুলিশ!

গরুর গোশ খাওয়া, গরু ক্বুরবানী করা, জুমার সালাত আদায় করা, মসজিদ-মাদ্রাসা করে দেওয়া – এই সকল ইসলামী রীতিনীতি পালন করাকে তো বহু আগেই আইন প্রয়োগ করে বন্ধ করা হয়েছে ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে। এবার ভারতে নতুন এক আইন সৃষ্টি করার পাঁয়তারা করছে মোদি সরকার, যে আইনের অধীনে স্বেচ্ছায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করাকে অপরাধ হিসেবে গন্য করা হবে। এটাকে ‘সাম্প্রদায়িকতার চরমতম বহিঃপ্রকাশ’ হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে সর্ববমহলে।

সম্প্রতি গুজরাট পুলিশ ৯ জন মুসলিমের বিরুদ্ধে মামলা করেছে। পুলিশদের দাবি, অভিযুক্তরা নাকি দীর্ঘদিন ধরে অশিক্ষিত হওয়ায় এবং পারিবারিক অর্থনৈতিক অবস্থার ফায়দা নিয়ে হিন্দু পরিবারগুলোকে মুসলিম করেছে। গুজরাট পুলিশ আরও দাবি করে যে, মুসলিম মৌলবাদীরা নাকি বিদেশ থেকে অর্থ জোগাড় করে এনে কান্‌করিয়া গ্রামের ‘বসবা হিন্দু’ সম্প্রদায়ের মানুষকে অর্থ ও সহযোগীতার লোভ দেখিয়ে তাদেরকে হিন্দু থেকে ইসলামে ধর্মান্তরিত করছে।

শুধু তাই নয়, পুলিশ আরও দাবি করে যে ইসলামে ধর্মান্তরিত করে তারা সেই ধর্মান্তরিত মুসলিমদের দিয়ে কথিত ‘সন্ত্রাসী’ কর্মকান্ডের মাধ্যমে দুই সম্প্রদায়ের মাঝে দাঙ্গা লাগিয়ে শান্তি নষ্ট করার প্রচেষ্টা করছে। ইসলাম ও মুসলিমদের প্রতি মনের গোপন বিদ্বেষ প্রকাশ করতে হিন্দুত্ববাদী পুলিশ এখন কি ছেলেমানুষে কারণই ন পেশ করছে।

ভারতের সংখ্যালঘু মুসলমান সম্প্রদায় ব্যপারটি নিয়ে বেশ সমালোচনা করেছে।তবে এই সমালোচনার বাইরে আর কিছু করার মতো সক্ত অবস্থানও হয়তো ভারতের মুসলিমরা অসাম্প্রদায়িক চেতনার জাঁতাকলে পরে অনেক আগেই হারিয়েছে।
তারা এখন তাই নিভু নিভু ভাষায় প্রতিবাদ করে বলছে যে, বিজেপি সরকার ভারতে ধর্মান্তরিত হবার বিষয়টিকে রাষ্ট্রীয়ভাবে ‘অপরাধ’ হিসেবে গণ্য করছে। যার ফলে পুরো দেশে হিন্দুত্ববাদী জাতীয়তাবাদ গড়ে উঠছে। অবশ্য এই বলাতে যে বিজেপি থোরাই খেয়াল করবে, সেটা জেনেও তারা প্রতিবাদ করার তৃপ্তির ঢেকুর তুলছে।

ভারতে অবশ্য এমন ঘটনা বড় কোন বিষয় হিসেবেও দেখা হয় না। গত প্রায় এক দশকের বেশি সময় ধরে ভারতে এমন ঘটনা নিয়মিত ব্যপার হয়ে দাঁড়িয়েছে। ইসলামকে কটাক্ষ করা, ইসলামী রীতিনীতিকে উগ্রতা হিসেবে বিশ্ব মঞ্চে পরিচিত করা, হিন্দু মেয়েরা মুসলিম ধর্মান্তরিত হলে ‘লাভ জিহাদ’ নামে আখ্যায়িত করা- কোন কিছুই বাকী রাখা হয়নি।

এদিকে পূর্ব ভারতের ৭ রাজ্যের ৪টি ইতিমধ্যে খ্রিস্টান হয়ে গেছে, একটি হওয়ার পথে, বাকি দুটিতেও খ্রিস্টান জনসংখ্যা হু হু করা বাড়ছে, খ্রিস্টান প্রধান রাজ্যগুলো অন্য হিন্দুপ্রধান রাজ্যগুলোর সাথে ভিন রাষ্ট্রের মতো আচরণ করে সীমান্তে গুলি করে পুলিশ হত্যা করছে – এতে হিন্দুত্ববাদী সংগঠন, দালাল মিডিয়া, উগ্র হিন্দু নেতা কারোই কিছু জায়-আশে না।
সমস্যা কি থলে শুধু ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হওয়া নিয়েই?

তথ্যসূত্রঃ
——
১। Maktoob Media- gujarat-100-tribals-embraced-islam-and-now-9-muslims-booked-for-criminal-conspiracy –
https://tinyurl.com/55epuwmj

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন