ভিক্ষাবৃত্তি নিরসনে ইমারতে ইসলামিয়া আফগানিস্তানের কার্যকরী কৌশল

0
361

আফগানিস্তানের শহরসমূহ থেকে ভিক্ষাবৃত্তি নিরসনে শুরু থেকেই মনোনিবেশ করেছিল ইমারতে ইসলামিয়া সরকার। এই লক্ষে তারা নানাবিধ কার্যকরী কৌশল গ্রহণ করেছে এবং তা বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে। একাধিক কর্মসূচি বাস্তবায়নের মাধ্যমে ইতোমধ্যে তারা উল্লেখযোগ্য সাফল্য অর্জন করেছে। ফলে শহরের রাস্তাঘাট ও অলিগলিতে ভিক্ষুকের সংখ্যা দিন দিন হ্রাস পাচ্ছে আলহামদুলিল্লাহ।

এই সংক্রান্ত প্রাথমিক একটি পদক্ষেপ হল ভিক্ষুকদের চিহ্নিত ও নিবন্ধিত করার লক্ষ্যে আদমশুমারি পরিচালনা করা। স্থানীয় কর্তৃপক্ষ, নেতৃবর্গ, সমাজকর্মী ও সংশ্লিষ্ট স্বেচ্ছাসেবক দলের সমন্বয়ে আদমশুমারি পরিচালনা করেছে ইমারতে ইসলামিয়া প্রশাসন। এই আদমশুমারি পরিচালনার মাধ্যমে ভিক্ষুকদের বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহ করেছেন সংশ্লিষ্ট কর্মীগণ।

দ্বিতীয় পর্যায়ে ভিক্ষুকদের জন্য নিরাপদ আশ্রয় ও পুনর্বাসন কেন্দ্র প্রতিষ্ঠা করছে তালেবান সরকার। এই কেন্দ্রসমূহে তাদের চিকিৎসা, দেখাশুনা ও বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা রাখা হচ্ছে। এর মাধ্যমে ভিক্ষুকগণ তাদের মৌলিক চাহিদা পূরণে সক্ষম হচ্ছে। পাশাপাশি সামাজিকভাবে তারা প্রতিষ্ঠিত হওয়ার সুযোগ পাচ্ছে।

ভিক্ষুকদের অর্থনৈতিকভাবে স্বাবলম্বী করে তুলতে ইমারতে ইসলামিয়া সরকার বেশ কিছু কার্যকরী কৌশল ও কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। তাদের কর্মক্ষমতা ও পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য কাঠমিস্ত্রি, সেলাই, কৃষি ও বিবিধ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। ফলে কর্মমুখী জীবনে অন্তর্ভুক্ত হয়ে তাদের মর্যাদাপূর্ণ জীবনযাপনের সুযোগ তৈরি হচ্ছে।

ভিক্ষাবৃত্তি নির্মূলে ইমারতে ইসলামিয়া প্রশাসনের আরও একটি উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ হল জনসচেতনতামূলক প্রচারণা। রেডিও, টেলিভিশন, সোশ্যাল মিডিয়া ও বিভিন্ন সম্প্রদায়ের দায়িত্বশীলদের মাধ্যমে জনসাধারণের নিকট এই সংক্রান্ত বার্তা পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। তাদের মাঝে ইহকাল ও পরকালে ভিক্ষাবৃত্তির কুফল সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধির প্রয়াস চালানো হচ্ছে। সরকারের গৃহীত উদ্যোগসমূহ বাস্তবায়নে সার্বিক সহযোগিতার জন্য নাগরিকদের উৎসাহ করা হচ্ছে।

এছাড়া ভিক্ষাবৃত্তি নিরসনে উপযুক্ত আইন ও বিধিনিষেধ প্রয়োগ করছে ইমারতে ইসলামিয়া প্রশাসন। এই উদ্দেশ্যে আইন প্রয়োগকারী কর্তৃপক্ষ শহরাঞ্চলে নজরদারি কার্যক্রম পরিচালনা করছে। তাদের তত্ত্বাবধানে রাস্তা ও অলিগলি থেকে ভিক্ষুকদের পুনর্বাসন কেন্দ্রে পাঠানো হচ্ছে। ফলে শহরের পরিবেশে ক্রমেই নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

ইমারতে ইসলামিয়া সরকারের নিবেদিত প্রচেষ্টায় অদূর ভবিষ্যতে দেশটি থেকে ভিক্ষাবৃত্তি সম্পূর্ণরূপে নির্মূল হবে ইনশাআল্লাহ। সরকারের গৃহীত এই সকল উদ্যোগ ও তার বাস্তবায়ন তাদের সুদৃঢ় প্রতিশ্রুতিরই প্রমাণ বহন করে।

আরও পড়ুন: ভিক্ষাবৃত্তি দূরীকরণে তালিবানের আন্তরিক পদক্ষেপ


তথ্যসূত্র:
1. Transforming Lives: The Islamic Emirate’s Successful Strategy to Eradicate Urban Begging
– https://tinyurl.com/4a65pfva

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন

পূর্ববর্তী নিবন্ধফিলিস্তিনের জিহাদ || আপডেট – ২৯ জুন, ২০২৪
পরবর্তী নিবন্ধগাজায় ইসরায়েলি বিমান হামলায় অন্তত ৪৩ ফিলিস্তিনি নিহত