আফগানিস্তানে মার্কিন সামরিক উপস্থিতি ২০ হাজারেরও বেশি

3
1333
আফগানিস্তানে মার্কিন সামরিক উপস্থিতি ২০ হাজারেরও বেশি

আফগানিস্তানে এখনো ক্রুসেডার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অনুমোদিত মোট সামরিক কর্মীর সংখ্যা বিশ হাজারেরও বেশি। বলছে ‘সিবিআই’।

আফগানিস্তানের পুনর্নির্মাণ কমিটির পরিদর্শক (সিবিআই) প্রধান ‘জন সোপকো’ দেশের সর্বশেষ পরিস্থিতি সম্পর্কে আজ ১৯ এপ্রিল তার বক্তব্যে গুরুত্বপূর্ণ কিছু তথ্য প্রকাশ করেছে।

সোপকের ভাষ্যমতে, মুরতাদ কাবুল সরকার বর্তমানে সম্পূর্ণরূপে বিদেশী শক্তির উপর নির্ভরশীল, এককভাবে তালেবানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ পরিচালনা করারমত কোন সমর্থও নেই কাবুল সরকারের। অন্য একজন রাজনীতিবিদ বলেন, বিদেশী সেনারা আফগানিস্তান ছাড়ার এক সপ্তাহের মধ্যেই কাবুল দখল করারমত সক্ষমতা রয়েছে তালেবানদের।

‘সিবিআই’ প্রধান তার বক্তব্যের এক পর্যায়ে দেশে ক্রুসেডার মার্কিন বাহিনীর উপস্থিতীর চাঞ্চল্যকর বিবরণও দিয়েছিল। সোপকো বলেছিল যে, আফগানিস্তানে ক্রুসেডার মার্কিন প্রতিরক্ষা বিভাগের (পেন্টাগন) অধিভুক্ত চুক্তিবদ্ধ কর্মীর সংখ্যা ১৮ হাজারেরও বেশি। এদের মধ্যে ৬ হাজার আমেরিকান এবং ৭ হাজার তৃতীয় দেশের সৈন্য রয়েছে।

এছাড়াও এসব সৈন্যদের মধ্যে বেশ কিছু ভাড়াটে সৈন্যও ররয়েছে। রয়েছে সরবরাহ, রক্ষণাবেক্ষণ এবং প্রশিক্ষণ ক্ষেত্রে কাজ করারমত আরো অনেক কর্মী। পেন্টাগনের সাথে চুক্তিবদ্ধ কর্মীদের সংখ্যা ২০,০০০ ছাড়িয়েছে।

অপরদিকে সরকার তাদের পরিসংখ্যানে প্রচার করে চলছে যে, আফগানিস্তানে বর্তমানে প্রায় আড়াই হাজার আমেরিকান সেনা রয়েছে। ক্রুসেডার আমেরিকার এমন কর্মকান্ড স্পষ্টই দোহা চুক্তির লঙ্ঘন।

আমেরিকার এমন চুক্তি বিরুধী কার্যক্রম এখানে যুদ্ধের তীব্রতাকে যেকোন মূহুর্তেই বাড়িয়ে দিতে পারে। তালেবানদের তথ্যমতে, চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার পর থেকে আমেরিকা ১২০০ এরও বেশি সামরিক অভিযানের মাধ্যমে চুক্তি লঙ্ঘন করেছে। আমেরিকা এভাবে বারংবার চুক্তি লঙ্ঘন করেছে। তারা যদি এখনো হেরফের করার চেষ্টা করে, তাহলে মুজাহিদগণ যেকোন পদক্ষেপ গ্রহণ করার অধিকার রাখেন। মুজাহিদদের প্রতিটি পদক্ষেপের জন্যই আমেরিকা দায়ী থাকবে।

3 মন্তব্যসমূহ

  1. অবশ্যই ওদের চুক্তি লঙ্ঘনের কারণে মুজাহিদীনরা যে কোন পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হবে
    আর এর জন্য দায়ী থাকবে খোদ আমেরিকা
    আর দ্রুত যে কোন পদক্ষেপ নেওয়াও দরকার এরা তো কাফির-মুশরিক এদের কথা ও কাজে তো কোন মিল নেই আর থাকবেওনা

    হে আল্লাহ! তুমি সারাবিশ্বের মুজাহিদীন ভাইদের সুস্হতা এবং নিরাপত্তা দান করো ।
    এবং আল-ফিরদাউস মিডিয়ার সকল ভাইদেরকে সুস্হতা এবং নিরাপত্তা দান করো এবং ভাইদেরকে তোমার দ্বীনের জন্য কবুল কর ।
    আমিন….ছুম্মা আমিন……

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন