ধুনটে আওয়ামী বাহিনীর মধ্যে বিবাদ চরমে

0
191

বগুড়ার ধুনট উপজেলা যুবলীগের শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক মামদুদুর রহমান মইনুলসহ চারজনের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ দায়ের হয়েছে। উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য জুয়েল সরকার বাদী হয়ে থানায় এ অভিযোগ দায়ের করেন।

সংবাদ মাধ্যম কালের কন্ঠ অভিযোগ সূত্রে জানিয়েছে, উপজেলার ধেরুয়াহাটি গ্রামের মোনছের আলীর ছেলে জুয়েল সরকার মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদের ১ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য। তিনি সন্ত্রাসী যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। জুয়েল সরকারের নিকট বিভিন্ন সময়ে চাঁদা দাবি করেন একই গ্রামের যুবলীগ নেতা মামদুদুর রহমান মইনুল ও তার লোকজন। কিন্ত জুয়েল সরকার তাদের দাবিকৃত চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করেন।

এতে জুয়েল সরকারের প্রতি ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন মইনুল ও তার লোকজন। একপর্যায়ে জুয়েল সরকারের ছবি বিকৃত করে মাদকদ্রব্য সেবনের একটি ভিডিও তৈরি করেন তারা। জুয়েল সরকারের সেই ভিডিওটি ৫ এপ্রিল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে (ফেসবুক) ভাইরাল করেন মইনুল ও তার লোকজন।

এ ঘটনায় জুয়েল সরকার বাদী হয়ে রবিবার রাতে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। ওই অভিযোগে ধেরুয়াহাটি গ্রামের আকতার হোসেনের ছেলে মামদুদুর রহমান মইনুল ও আলীমুদ্দিনের ছেলে আল-মাহমুদসহ চারজনকে আসামি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে মামদুদুর রহমান মইনুল বলেন, জুয়েল সরকারের মাদক সেবনের ভিডিও ভাইরাল করার ঘটনার সাথে আমি জড়িত না। তারপরও তিনি আমাকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে ২২ মার্চ থানায় অভিযোগ দিয়েছি। ওই অভিযোগ থেকে বাঁচার জন্য তিনি আমার বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির মিথ্যা অভিযোগ দিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন