গর্ভের সন্তান হত্যার অনুমতি দিল আর্জেন্টিনা: কথিত মানবাধিকার সংস্থাগুলোর খুশি প্রকাশ

0
339
গর্ভের সন্তান হত্যার অনুমতি দিল আর্জেন্টিনা: কথিত মানবাধিকার সংস্থাগুলোর খুশি প্রকাশ

মানবতার ধ্বজাধারী মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দেশ আর্জেন্টিনার পার্লামেন্ট গর্ভের সন্তানকে হত্যার (গর্ভপাত) বিল পাস করেছে। দক্ষিণ আমেরিকার চতুর্থ দেশ হিসেবে গর্ভপাতকে বৈধতা দিল দেশটি। বার্তা সংস্থা রয়টার্স ও আল-জাজিরার খবরে এমন তথ্য মিলেছে।

বিলটি অনুমোদনের পক্ষে সিনেটে ৩৮টি ভোট পড়েছে, বিপক্ষে ২৯টি। আর অনুপস্থিত ছিলেন একজন।

আইনে বলা হয়, গর্ভাবস্থার ১৪ সপ্তাহের মধ্যে গর্ভপাত করা যাবে।

মঙ্গলবার বিকাল ৪টায় শুরু হওয়া দীর্ঘ বিতর্কের পরে আইনটি পাস হয়েছে। ১২ ঘণ্টার বিতর্কের সময়ে হাজারো মানুষ এসে জাতীয় কংগ্রেস চত্বরে জড়ো হন।

দীর্ঘ প্রচারের পরে ভোটটির আয়োজন করা হয়। দেশটিতে এখনো ইস্যুটি নিয়ে বিভক্ত হয়ে পড়েছে মানুষ। বিলটি পাস হওয়ার সময় কংগ্রেসের বাইরে গর্ভপাতবিরোধীরা জড়ো হয়েছিলেন।

আইনপ্রণেতারা যাতে বিলটি বন্ধ করে দেন, সেই কামনা করে তাদের প্রার্থনা করতে দেখা গেছে।

এসময় ‘হাসপাতালে বৈধ গর্ভপাতের’ দাবিতে একদল মানুষকে স্লোগানও দিতে দেখা গেছে।

মানুষের জন্মবিরোধী এ বিতর্কিত বিলে বেশ খুশি প্রকাশ করেছে কথিত মানবাধিকার সংস্থাগুলো। মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস ওয়াচের জ্যেষ্ঠ গবেষক জন প্যাপিয়ার বলেন, একটি ক্যাথলিক দেশে এই আইন পাস করা একটি বড় ঘটনা। তবে এতে নারী অধিকার আরও জোরদার হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

বিজ্ঞজনদের মতে, ‘এধরনের ঘটনায় মানবাধিকারের ধ্বজাধারী পশ্চিমের অমানবিক চরিত্র ফুটে ওঠে। যারা দুনিয়াজুড়ে মানবাধিকারের সবক দিয়ে বেড়ায়, দেশেদেশে যারা পশু-পাখির সুরক্ষার জন্যও মায়াকান্না করে তাদের এমন মানুষহত্যার মতো ব্যাপার থেকে পশ্চিমামুগ্ধ মানুষদের শেখার অনেক কিছু রয়েছে।’

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন