হিন্দুত্ববাদী আগ্রাসন | নওগাঁয় হিজাব পরায় মুসলিম ছাত্রীদের পিটিয়েছে হিন্দুত্ববাদী শিক্ষিকা আমোদিনি পাল

উসামা মাহমুদ

1
1257
ব্রেকিং নিউজ | নওগাঁয় হিজাব পরায় মুসলিম ছাত্রীদের পিটিয়েছে হিন্দুত্ববাদী শিক্ষিকা আমোদিনি পাল

এবার নওগাঁর মহাদেবপুরে হিজাব পরে স্কুলে আসায় মাধ্যমিক মুসলিম স্কুল ছাত্রীদের লাঠি দিয়ে পিটিয়েছে হিন্দু শিক্ষিকা আমোদিনি পাল। পিটুনি খেয়ে ছাত্রীরা স্কুল ছেড়ে বাড়িতে চলে যেতে বাধ্য হয়।
বুধবার (৬ এপ্রিল) দুপুরে উপজেলার সদর ইউনিয়নের দাউল বারবারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের শিকার ওই স্কুলের অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী সাদিয়া আফরিন জানিয়েছে, বুধবার দুপুরে জাতীয় সংগীতের পর লাইনে দাঁড়ানো অবস্থায় ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা আমোদিনি পাল -কেন হিজাব পরে স্কুলে এসেছি- এ কথা জিজ্ঞেস করে ইউক্যালিপটাস গাছের ডাল দিয়ে তাদের প্রহার করে। ছাত্রীদের হিজাব খুলে ফেলার জন্য টানাটানি করে। শিক্ষিকা তাদেরকে জানিয়ে দেয় যে, ‘স্কুলে কোন পর্দা চলবে না। ঢং করে আসছো। বাসায় গিয়ে বোরখা পড়ে থাকো। যখন তোমরা মহাদেবপুর বাজারে যাবে তখন পর্দা করবে। স্কুলে আসলে মাথার কাপড় ফেলে আসবে।’
এমনকি যারা হিজাব ছাড়া শুধু মাস্ক পড়ে এসেছিল, তাদের মাস্কও খুলে দেয়। হুমকি দেয়, ‘কাল থেকে যদি হিজাব ও মাস্ক পরে আসো, তাহলে পিটিয়ে তোমাদের পিঠের চামড়া তুলে নেওয়া হবে।’

সাদিয়া জানায়, লাইনের কয়েকজন ছাত্রীকে মারতে মারতে তার কাছে এসে তাকে মারতে থাকলে লাঠি ভেঙে যায়। অন্যদের মধ্যে দশম শ্রেণির ছাত্রী ঐশি, সুমাইয়া, তিথি, লাকি, নবম শ্রেণির মোনাসহ কয়েকজন ছাত্রীকে পেটানো হয়।

এক পর্যায়ে আমোদিনি পাল ছাত্রীদের মারধরের জন্য স্কুলের অপর শিক্ষক বদিউল আলমকে নির্দেশ দেয়। তার নির্দেশে বদিউল আলমও তাদের প্রহার করে বলে অভিযোগ ছাত্রীদের।

অভিভাবকরা জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে তারা স্কুল ঘেরাও করেন। কিন্তু অভিযুক্ত শিক্ষিকা এদিন স্কুলে আসেননি। এ ঘটনায় হিন্দু শিক্ষিকা আমোদিনি পালের বিচার দাবি করেন অভিভাবকরা।

তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত প্রশাসন কোন ব্যবস্থা নেয়নি। কথিত সুশীল সমাজ- যারা কয়েকদিন ধরে সামাজিক মাধ্যমকে লতা সমাদ্দারের পক্ষ নিয়ে কাপিঁয়ে তুলেছিল, তারাও ঘুমিয়ে গেছে। তারা এখন আর হিজাব পরে মুসলিম ছাত্রীদের পক্ষ নিয়ে কথা বলবে না। কারণ একটাই, তারা মুসলিম, আর অপরাধী হল হিন্দু। কথিত নারীবাদিরা এখন চুপ হয়ে গেছে। হলুদ মিডিয়াগুলোও যেন এখন অন্ধ হয়ে গেছে।

তাই সচেতন বিশেষজ্ঞ মহল মত দিয়েছেন, বাংলাদেশকে ভারতের মত উগ্র হিন্দুত্ববাদীদের নিয়ন্ত্রণে নেওয়া আগেই ঐক্যবদ্ধ হয়ে হিন্দুত্ববাদিদের প্রতিহত করা উচিৎ।

তথ্যসূত্র:
——–
১। নওগাঁয় হিজাব পরায় ছাত্রীদের পেটালেন শিক্ষিকা আমোদিনি পাল
https://tinyurl.com/mryx2zbh
২। নওগাঁর মহাদেবপুরে হিজাব পড়ে স্কুলে আসায় পেটালেন শিক্ষিকা
https://tinyurl.com/mr3dav87

১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন