সন্ত্রাসী আওয়ামী লীগের সম্মেলনে সন্ত্রাসী ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ

0
739
সন্ত্রাসী আওয়ামী লীগের সম্মেলনে সন্ত্রাসী ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ

মৌলভীবাজার সদর উপজেলা সন্ত্রাসী আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন চলাকালীন সময়ে সন্ত্রাসী ছাত্রলীগের দু’গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। পরে আওয়ামী দালাল পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

কেন্দ্রীয় সন্ত্রাসী আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের উপস্থিতে সোমবার দুপুরে মৌলভীবাজার পৌর জনমিলন কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, স্লোগান দেওয়াকে কেন্দ্র করে পৌর মেয়র মো. ফজলুর রহমান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেনের বলয়ের দু’গ্রুপের মধ্যে চেয়ার ছোড়াছুড়ি, হাতাহাতি ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া হয়।

এসময় এক গ্রুপের নেতাকর্মীরা অন্য গ্রুপের নেতাকর্মীদের দিকে চেয়ার ছুড়ে মারে। এতে দু’পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি ও সম্মেলন স্থলের জানালার গ্লাস ভাঙচুর করা হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে মঞ্চ থেকে পৌর মেয়র মো. ফজলুর রহমান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেনসহ একাধিক অতিথি নেমে এসে চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়।

পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এ ঘটনার জন্য সন্ত্রাসী ছাত্রলীগকে অভিযুক্ত করেছে কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মিছবাহ উদ্দিন সিরাজ। সে পৌর মেয়র মো. ফজলুর রহমান ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ কামাল হোসেনের নাম উল্লেখ করে বলেছে, ‘আমরা মনে করি এখানে দুজনই নেতৃত্বে আছে। তাদের মূল দায়িত্ব এই সম্মেলন যাতে সুন্দর ও সফলভাবে সম্পন্ন হয়।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিল কেন্দ্রীয় সন্ত্রাসী আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন।

উপস্থিত ছিল কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মিছবাহ উদ্দিন সিরাজ, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সংসদ সদস্য নেছার আহমদ, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আজিজুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মিছবাহুর রহমান, পৌর মেয়র মো. ফজলুর রহমান ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ কামাল হোসেন প্রমুখ।

সুত্রঃ বিডি প্রতিদিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন

পূর্ববর্তী নিবন্ধ২০২৪ সালের মধ্যেই সব অনুপ্রবেশকারীকে তাড়াব বলল হিন্দুত্ববাদী মন্ত্রী সন্ত্রাসী অমিত শাহ
পরবর্তী নিবন্ধবগুড়ায় ইয়াবা বিক্রির সময় সন্ত্রাসী র‌্যাব সদস্যকে আটক করল জনগন