কাবুলে ৫টি গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন ইসলামি ইমারতের অর্থনীতি বিষয়ক উপ-প্রধানমন্ত্রী

আবু আব্দুল্লাহ

4
822
কাবুলে ৫ টি বিশেষ প্রকল্পের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মোল্লা আব্দুল গনি বারাদার (হাফি.) ও কাবুলের মেয়রের সাথে অন্যান্য তালিবান উমারা ও কর্মকর্তাগণ

আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে ইমারতে ইসলামিয়ার অর্থনীতি বিষয়ক উপ-প্রধানমন্ত্রী মোল্লা আব্দুল গনি বারাদার আখুন্দ পাঁচটি গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্পের উদ্বোধন করেছেন। গত ১৫ জুন আয়োজিত ঐ অনুষ্ঠানে তার সাথে যোগ দিয়েছিলেন কাবুলের মেয়র মৌলভী আব্দুল রশিদ।

অনুষ্ঠানে ভাষণকালে অর্থনৈতিক বিষয়ক উপ-প্রধানমন্ত্রী জোর দিয়ে বলেছেন যে, এই প্রকল্পগুলো শেষ করতে পারলে এগুলো কাবুলের নাগরিকদেরকে অনেক সুবিধা প্রদান করবে। পাশাপাশি প্রকল্পগুলো কাবুলের অতিরিক্ত ভিড় ও যানজটের সমস্যা দূর করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলেও আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

একই দিনে শুরু হওয়া গুরুত্বপূর্ণ এই প্রকল্পগুলির মধ্যে একটি হল কাবুলের উত্তর-পশ্চিম সংযোগ সড়কের নির্মাণকাজ, যা আঠারো মাসের মধ্যে শেষ করা হবে বলে জানায় সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। এই রাস্তাটির দৈর্ঘ্য ৭.৫ কিলোমিটার এবং প্রস্থ ৩০ মিটার। প্রকল্পটির ব্যয় অনুমান করা হয়েছে ৫৩০ মিলিয়ন আফগানি, যা কাবুল পৌরসভার অভ্যন্তরীণ রাজস্ব থেকে পূরণ করা হবে।

উল্লেখ যে, এই রাস্তাটির নির্মাণকাজ সফলভাবে সমাপ্ত হলে দেশের উত্তরাঞ্চলীয় প্রদেশসমূহের সাথে কাবুল-হেরাত মহাসড়কের একটি সরাসরি সংযোগ স্থাপিত হবে, আর তা দেশজুড়ে যোগাযোগ সহজতর করবে।

বক্তৃতায় মোল্লা বারাদার অনুকূল নিরাপত্তা পরিস্থিতি তৈরির জন্য এবং শহরকে সুন্দর ও সুসংগঠিত করে গড়ে তুলার জন্য কাবুল পৌরসভার পরিশ্রমী প্রচেষ্টারও ভূয়সী প্রশংসা করেন।

এর ঠিক ২ দিন আগে, অর্থাৎ গত ১৩ জুন আফগানিস্তানের কুনার প্রদেশের খাস কুনার জেলার শামকার গ্রামে একটি ছোট বিদ্যুৎ বাঁধের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করেন ইমারতের জ্বালানি ও পানি মন্ত্রণালয়ের ইঞ্জিনিয়ারিং সার্ভিসেস (WAPICA) প্রধান প্রকৌশলী ইজাজুল হক দানিশিয়া। স্থানীয় কর্মকর্তা ও এলাকার প্রবীণগণও বাঁধ নির্মাণ কাজ উদ্বোধনের সময় উপস্থিত ছিলেন।

বাঁধ নির্মাণ কার্যক্রম উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তালিবান উমারা ও কর্মকর্তাদের সাথে স্থানীয় প্রবীণ ও সাধারণ বাসিন্দারা

১৫ কিলোওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনের ক্ষমতা সম্পন্ন এই বাঁধটির নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে ৮ লক্ষ ৯ হাজার ৯১৫ আফগানি। নির্মাণের সার্বিক কাজ দুই মাসের মধ্যে শেষ করা হবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

উল্লেখ্য যে, বাঁধটি “আফগানিস্তান পাওয়ার ড্যাম পিপলস ক্যাম্পেইন” এর আর্থিক সহায়তায় নির্মিত হচ্ছে।

ছোট-বড় এই প্রকল্পগুলো আফগানের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে ব্যাপক প্রণোদনা যোগাচ্ছে এবং আফগান অর্থনীতিকে একটি মজবুত ভিত্তির উপর দাঁড় করাতে সক্ষম হচ্ছে। আর তালিবান উমারাগণ এবং ইমারতের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সততা, নিষ্ঠা ও ন্যায়পরায়নতা কাজগুলোকে স্বল্প খরচে ও স্বল্প সময়ে সফলভাবে সম্পন্ন করতে ভূমিকা রাখছে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, পশ্চিমাদের সকল নিষেধাজ্ঞা ও বাঁধা-বিপত্তিকে পাশ কাটিয়ে দ্রুত ও টেকসই উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাচ্ছে ইমারতে ইসলামিয়া আফগানিস্তান।



 

তথ্যসূত্র:

1. Deputy Economic PM Inaugurates 5 Projects in Kabul
https://tinyurl.com/33tz4z5v
2. Construction of power dam starts in Kunar
https://tinyurl.com/26rv85un

4 মন্তব্যসমূহ

  1. আলহামদুলিল্লাহ, এঁদেরকে দেখলেই প্রাণটা জুড়িয়ে যায়। আল্লাহ তা’আলা অতিদ্রুত আমাদেরকেও ইসলামি শাসনের অধীনে জীবন-যাপন করবার তাওফীক দান করুন, আমিন!!

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন

পূর্ববর্তী নিবন্ধধ্বংসপ্রাপ্ত সামরিক যান মেরামতে ইমারতে ইসলামিয়ার টেকনিক্যাল টিমের সাফল্য
পরবর্তী নিবন্ধমুসলিম সম্প্রদায়কে অর্থনৈতিক বয়কটের আহ্বান সাভারকারের নাতির