ইনফোগ্রাফি || এপ্রিলে পাক-তালিবানের হামলায় ১৯৬ নাপাক সেনা হতাহত

আলী হাসনাত

0
1354
ইনফোগ্রাফি || এপ্রিলে পাক-তালিবানের হামলায় ১৯৬ নাপাক সেনা হতাহত

পাকিস্তান ভিত্তিক জনপ্রিয় ইসলামি প্রতিরোধ বাহিনী তেহরিক-ই-তালেবান পাকিস্তান (টিটিপি) সম্প্রতি একটি ইনফোগ্রাফি প্রকাশ করেছে। যেখানে গত এপ্রিল মাসে টিটিপি কর্তৃক দেশটির গাদ্দার সামরিক বাহিনীর উপর পরিচালিত হামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণ তুলে ধরা হয়েছে৷

ইনফোগ্রাফি অনুযায়ী, প্রতিরোধ বাহিনী টিটিপি এপ্রিল মাসে ইসলাম বিরুধী গাদ্দার পাকি সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে মোট ৫৪টি হামলা চালিয়েছেন। যার মধ্যে উত্তর ওয়াজিরিস্তানে সর্বোচ্চ ১৪টি, দক্ষিণ ওয়াজিরিস্তানে ১৩টি, পেশোয়ারে টি, বাজোর এজেন্সিতে টি, চরসাদ্দা এবং খাইবারে এজেন্সিতে তিনটি করে মোট টি হামলা রেকর্ড করা হয়েছে। একইভাবে কোহাট, ডেরা ইসমাইল খান, বান্নু এবং মাহমান্দ এজেন্সিতেও দুটি করে মোট টি হামলা রেকর্ড করা হয়েছে। অপরদিকে কারাক, মারদান, নওশেরা এবং কুররাম এজেন্সিতে একটি করে আরও ৩টি হামলা চালানো হয়েছে।

এসব হামলার মধ্যে রয়েছে ১৩টি বোমা বিস্ফোরণ, ১০টি লক্ষ্যবস্তুতে হামলা এবং টি অ্যামবুশ হামলা। এছাড়াও নাইট লেজার বন্দুক দ্বারা টি এবং প্রতিশোধ মূলক টি হামলা চালিয়েছেন টিটিপির মুজাহিদগণ।

টিটিপির মুখপাত্র মুহাম্মদ খোরাসানী নিশ্চিত করেছেন যে, প্রতিরোধ বাহিনীর বীর যোদ্ধাদের এসব বরকতময় হামলায় ১২২ সৈন্য, ৫৬ পুলিশ, ১৬ এফসি এবং গোয়েন্দা কর্মকর্তা সহ ৫৪টি হামলায় ১৯৬ গাদ্দার নিহত ও আহত হয়েছে।

ইনফোগ্রাফিতে আরও বলা হয়েছে, গত মাসে গাদ্দার বাহিনীর কাছ থেকে মুজাহিদগন ১,০৫২,০০০ নগদ অর্থ, ১৩টি ক্লাশিনকোভ এবং দু’টি G3 রাইফেল গনিমত পেয়েছেন।

উল্লেখ্য যে, পাক-তালিবান কর্তৃক ঘোষিত এই সংখ্যাটি এক মাসে সর্বোচ্চ সংখ্যক হামলার রিপোর্ট। এর আগে সর্বোচ্চ সংখ্যাটি ছিল গত বছরের ডিসেম্বরে ৪৫টি হামলা।

অপরদিকে এই বছরের প্রথম তিন মাসে, টিটিপির বীর মুজাহিদিন যথাক্রমে ৪২ টি, ২২টি এবং ৪০টি হামলা চালিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

দয়া করে আপনার মন্তব্য করুন!
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন